রাজা চাপিতলার ১২ শহীদের সম্মান কিংবা নাম মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় স্থান হয়নি স্বাধীনতার ৪৭ বৎসর পরেও

Home Page » প্রথমপাতা » রাজা চাপিতলার ১২ শহীদের সম্মান কিংবা নাম মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় স্থান হয়নি স্বাধীনতার ৪৭ বৎসর পরেও
সোমবার, ২১ মে ২০১৮



বঙ্গ নিউজ (সাজ্জাদ কামাল); খবর নিয়ে জানা গেছে ১৯৭১ সালের মুক্তিযোদ্ধে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্থ ও ভয়াবহ রক্তে রঞ্জিত হয়েছিল কুমিল্লা জেলার অন্তর্গত মুরাদনগর উপজেলার বাঙ্গরা বাজার থানার রাজা চাপিতলা গ্রামের ,দক্ষিন-পশ্চিম পাড়ার অহিদ উল্লাহ কেরানী বাড়ী৷

এলাকাবাসী বঙ্গ-নিউজ কে জানান, আফসোসের বিষয় এই যে বর্তমান সরকার মুক্তিযোদ্ধা বান্ধব সরকার তারপরও এই পরিবার গুলোকে যথার্থ সম্মাননা দিতে পারেনি। স্বাধীনতার ৪৭ বৎসর অতিবাহিত হয়ে গেল অথচ শহীদ অহিদ উল্লাহ সহ ১২জন লোক শহীদ হয়েছেন ১৯৭১ সালে। তাদের অপরাধ ছিল,দেশ কে ভালোবেসে বাড়ীতে মুক্তি যোদ্ধা ক্যাম্প করে ছিল৷

কিন্তু এখন পর্যন্ত এই নির্মম হত্যা কান্ডে শহীদ হওয়া মুক্তিযোদ্ধাদের কোন স্মৃতিফলক কিংবা তাদের কবর গুলি সংরক্ষণ করা হয়নি৷

১২ শহীদের পরিবার গুলোর স্বাধীনতার ৪১ বৎসরে ও তাদের খবর নেননি কেউ কিভাবে তারা পরিবারের কর্তা হারিয়ে সমাজে টিকে আছেন।

শহীদ পরিবার গুলোর জীবন দর্শায় করুন মানবতায় জীবন যাপন করছে৷ কারো বাবা হারিয়েছে,ভাই হারিয়েছে,আবার কেউ স্বামী হারানোর যন্ত্রনা নিয়ে বেঁচে আছে, শুধু তাদের দেখার মত মানুষ নাই৷ শুধু তাই নয় শহীদ অহিদ উল্লাহ কেরানী বাড়ীর সামনে একটা ব্রীজের বিশেষ প্রয়োজন ছিল কিন্তু দুঃখের বিষয় বছরের পর বছর তারা পরিবারের কর্তা হারিয়ে এক অসহায়ত্ব নিয়ে বসবাস করছেন, তাদের পরিবার গুলো কোন রকম বেঁচে আছেন। কারো কোন সহযোগিতা কিংবা মুক্তিযোদ্ধা পরিবার হিসেবে স্বীকৃতি পায় নি।

একই বিষয়ে উক্ত এলাকার প্রবাসী স্বপন ভূঁইয়া ফেইসবুকে লিখেছেন: বিনীত ভাবে অনুরোধ করছি, মুরাদনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইউ এন ও জনাবা মিতু মরিয়ম আপনার সুদৃর্ষ্টি সুষ্ট ব্যবস্থাপনায় সরজমিনে তদন্তের ব্যবস্থার অনুরোধ করছি৷ রাজা চাপিতলা শহীদ অহিদ উল্লাহ কেরানী সহ তাদের নাম গুলো তুলে ধরলামঃ

১| শহীদ অহীদ উল্লাহ কেরানী
২| আব্দুল গফুর(শিশু মেম্বারের বাবা)
৩| সুলতান (ছাইদুল এর বাবা)
৪|সুন্দর আলী(ছাইদুল এর শশুর)
৫| হারুন(ছাইদুল এর ভাই)
৬| জব্বার আলী(উঃ বাড়ী)
৭| তাজূল ইসলাম (দঃ বাড়ী)
৮| হাফিজ উদ্দীন (দঃবাড়ী)
এবং দঃ বাড়িতে শহীদ নাম না জানা কাজের লোক আরো তিন জন তাদের ঋণ কোনদিন শোধ হবে না৷আল্লাহ যেন সকল শহীদের কে জান্নাত বাসী করেন৷ সবার সহযোগীতা কামনা করছি।(হুবহু তার প্রোফাইল হতে সংগ্রহিত)

এই অবস্থায় মুক্তিযোদ্ধা পরিবার গুলো ও এলাকাবাসী মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় এবং বাংলাদেশ সরকারের সাহায্য কামনা করছেন।

কাল্পনিক ছবি

বাংলাদেশ সময়: ১৩:২২:৪১   ৪৮৭ বার পঠিত  




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

প্রথমপাতা’র আরও খবর


ভাঙ্গায় আওয়ামীলীগের বহিঃস্কৃত সাধারণ সম্পাদকের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজী মামলা
সাইবার হামলার আশঙ্কায় দেশের ব্যাংকগুলোতে সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি
গৃহবধূ ফারিয়া মাহজাবিনকে তিনদিনের রিমান্ড দিয়েছে আদালত
কোটা সংস্কার এবং নিরাপদ সড়ক আন্দোলন নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলতে চাই ড. কামাল
বঙ্গবন্ধুকে হত্যার প্রতিরোধ গড়ার জন্য মা থেকে অনুপ্রেরণা পান কাদের সিদ্দিকী
ফখরুল ইসলাম আলমগীরের আহবান রাষ্ট্রদ্রোহীতার শামিল:ওবায়দুল কাদের
পশুবাহি ট্রাকের সামনে হাটের নাম লেখা ব্যানার টাঙিয়ে আসতে হবে, পুলিশের মহা-পরিদর্শক ড. জাবেদ পাটোয়ারী
মধ্যনগর থানা স্বেচ্ছাসেবকলীগের জাতীয় শোক দিবস পালন
সাত কলেজের শিক্ষার্থীদের সেশনজট,প্রায় এক বছর পিছিয়ে কয়েক লাখ শিক্ষার্থী
১৫ আগস্টের হত্যার সঙ্গে শুরু থেকেই জড়িত ছিলো জিয়াউর রহমান:শেখ হাসিনা

আর্কাইভ