বাংলাদেশের কোথাও বসে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালানো সম্ভব নয়: মিয়ানমারকে বাংলাদেশ

Home Page » জাতীয় » বাংলাদেশের কোথাও বসে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালানো সম্ভব নয়: মিয়ানমারকে বাংলাদেশ
বৃহস্পতিবার, ১০ জানুয়ারী ২০১৯



প্রতীকি ছবি

বঙ্গ-নিউজ: বাংলাদেশে আরাকান আর্মির এবং আরসার তিনটি ঘাটি রয়েছে বলে মিয়ানমার সরকারের মুখপাত্রের বরাত দিয়ে যেসব খবর প্রকাশ করা হয়েছে -তার প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

এক বিবৃতিতে দেশটি জানিয়েছে, ওই অভিযোগ পুরোপরি বানোয়াট ও ভিত্তিহীন। দেশটির সতর্কতা ও নিরাপত্তা বাহিনীর পদক্ষেপের কারণে বাংলাদেশের কোথাও বসে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালানো সম্ভব নয়।

‘কারণ প্রতিবেশী দেশের বিরুদ্ধে এ ধরণের কর্মকাণ্ড চালানোর জন্য কাউকে সুযোগ দেয় না বর্তমান সরকার।’ প্রতিবেদনে এসব তথ্য তুলে ধরেছে বিবিসি বাংলা।

ওই প্রতিবেদনে আরও তুলে ধরা হয়- গত ৪ঠা জানুয়ারি মিয়ানমারের স্বাধীনতা দিবসে রাখাইনে চারটি পুলিশ পোস্টে বৌদ্ধ বিদ্রোহীদের হামলায় দেশটির নিরাপত্তা বাহিনীর সাত সদস্য নিহত হয়েছে।

পশ্চিমাঞ্চলীয় এ রাজ্যটিতে গত ডিসেম্বর থেকেই আরাকান আর্মি ও সামরিক বাহিনীর মধ্যে সংঘর্ষ জোরদার হতে থাকলে নতুন করে সহিংসতা শুরু হয়।

তবে সোমবার (৭ জানুয়ারি) মিয়ানমারের প্রেসিডেন্টের অফিসের মুখপাত্র যাউ হতাই একটি প্রেস ব্রিফিংয়ে বলেন, ‘বিছিন্নতাবাদী আরাকান আর্মি এবং আরসা সন্ত্রাসীগ্রুপগুলো বাংলাদেশে ঘাটি গেড়ে কর্মকাণ্ড চালাচ্ছে।’

ওই বক্তব্যের জবাবে বাংলাদেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় আজ বলছে, ‘আমরা জোরালোভাবে বলছি যে, বাংলাদেশে কোন বিদেশী সন্ত্রাসী গ্রুপের উপস্থিতি নেই অথবা এ ধরণের কোন গ্রুপকে বাংলাদেশ কখনো আশ্রয়প্রশ্রয় দেয় না।’

‘দুই প্রতিবেশীর মধ্যে শান্তিপূর্ণ সম্পর্কে প্রভাব ফেলতে পারে, এরকম যেকোন ঘটনা এড়াতে সীমান্ত রক্ষীদের পাশাপাশি বাংলাদেশের নিরাপত্তা বাহিনী সর্বদা সতর্ক রয়েছে।’

মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, সন্ত্রাস প্রতিরোধে প্রতিবেশী অনেক দেশের সঙ্গে বাংলাদেশের যৌথ অভিযান অত্যন্ত সফল হয়েছে। বেশ কয়েকটি ক্ষেত্রে একই ধরণের সহায়তার প্রস্তাব করা হয়েছিল মিয়ানমার সরকারকে। সীমান্ত এলাকায় দাবি করা সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের এলাকায় যৌথ অভিযান চালানোর জন্যও প্রস্তাব করা হয়েছে।

‘কিন্তু দুঃখজনকভাবে মিয়ানমারের পক্ষ থেকে ততটা আগ্রহ দেখা যায়নি। এমনকি অভিযোগ করা সন্ত্রাসী ঘাটির বিষয়ে সুনির্দিষ্ট বিবরণ ও প্রমাণ দিতে ব্যর্থ হয়েছে মিয়ানমার,’ বিবৃতিতে বলা হয়।

এ ধরণের অভিযোগের কড়া প্রতিবাদ জানিয়ে বাংলাদেশ বলছে, মিয়ানমারের বর্তমান সহিংসতা দেশটির নিজস্ব রাজনৈতিক ও সামাজিক কারণেই ঘটছে। তার নিজের রাজনৈতিক সমস্যার সঙ্গে বাংলাদেশকে না জড়ানোর জন্য আহবান জানিয়েছে দেশটি।

বাংলাদেশ সময়: ৯:০২:১৯   ২১ বার পঠিত   #  #  #  #  #  #




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

জাতীয়’র আরও খবর


ধনী বৃদ্ধির হারে বাংলাদেশ বিশ্বে তৃতীয়
খুলনাগামী সুন্দরবন এক্সপ্রেসের বগি লাইচ্যুত, রেল যোগাযোগ বন্ধ
স্বাধীনতাস্তম্ভ নির্মাণ প্রকল্পের কাজ করার লক্ষ্যে অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ শিশুপার্ক
শেখ হাসিনাকে আন্তরিক অভিনন্দন জানিয়েছেন দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট মুন জায়ে-ইন
আপনিও খণ্ডকালীন কাজ করতে পারেন একুশে বইমেলায়
সংসদে বিরোধী দল কে হবে সে সিদ্ধান্তও নিতে হচ্ছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের
সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের শূন্য আসনে ভোটের বিষয়ে করণীয় খুঁজছে নির্বাচন কমিশন
ফের ভারত থেকে পালিয়ে বাংলাদেশে এল ৩০০ রোহিঙ্গা পরিবারের ১৩০০ জন
সিলেটের দারুণ জয়
জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে টিআইবির অভিযোগ অলীক রহস্যময় কাহিনি : ওবায়দুল কাদের

আর্কাইভ