আমি একজন কর্পোরেট কামলা

Home Page » ফিচার » আমি একজন কর্পোরেট কামলা
মঙ্গলবার, ১৮ ডিসেম্বর ২০১২



একটা সময় ছিল যখন বেলা ১০টা/১১টার আগে ঘুম থেকে উঠার কথা কল্পনাই করতাম না| বেলা করে ঘুম থেকে উঠার গ্যারান্টি ছিল বলে রাত জাগা টা এক ধরনের বিলাসিতায় পরিনত হলো| অসুস্থ না হলে ভোর রাতের আগে বিছানায় গেছি বলে মনে পরেনা| জামাকাপড় কেমন পরলাম সেটা দেখার সময় থাকত না| হাত এর সামনে যা পেলাম, সেটা ইস্ত্রী ছাড়া হলো নাকি আধোয়া হলো সেটা খেয়াল করার সময় কই! আর সারাদিনের বস্তাভর্তি আজাইরা কাজ, আড্ডা, ঘুরাঘুরি, মারামারি এগুলা নাহয় বাদই দিলাম|

সেই আমিই এখন ঘুম থেকে উঠি রোজ সকাল ৭টায়| সুন্দর ইস্ত্রী করা, ধোয়া জামা পরে ভদ্রভাবে তৈরী হয়ে কামলা খাটতে যাই| সারাদিন একটা মিষ্টি মেকি হাসি ঠোটের কোনে ঝুলিয়ে রাখি| উপরওয়ালাদের বাস্তব, অবাস্তব, ফালতু, সঠিক, ন্যায়, অন্যায় সব রকম কথায় হাসিমুখে ঠোটকাটা হিসাবে খ্যাত এই আমি এখন “জ্বি, স্যার” বলি| অশিক্ষিত আর অর্ধশিক্খিতরা মাথার উপর উঠে উদ্দাম নৃত্য করতে চায়| সেখানেও ২ কুল বাঁচিয়ে চলতে হয়| ১৮ বছরের সকল শিখ্যা ভুলে গিয়ে তৈল মর্দনের নতুন এক কোচিং সেন্টারে এসে ভর্তি হলাম যেন| এখেন এতসব “জ্বি হুজুর” এর মাঝেও নিজেকে বাঁচিয়ে রাখার চেষ্টা করতে হয় সারাদিন| দিন শেষে নিজের এই আমি কে যেন হারিয়ে না ফেলি, সেই চঞ্চল, ছটফটে মেয়েটা যেন মারা না যায় সেই যুদ্ধে জয়ী হওয়াটাই এখন যেন সবচে বড় লক্ষ্য| সন্ধায় বাড়ি ফিরে আগের সেই স্বপ্নালু চোখ ২ টা খুলে রাখতেও এখন কষ্ট হয়| স্বপ্ন দেখা তো এখন স্বপ্নের মতই| শেষ কবে ঘুমের মাঝে স্বপ্ন দেখেছিলাম ভুলে গেছি| বন্ধুদের মাঝে “রাত জাগা পাখি” বলে খ্যাত এই আমি এখন ১০ত বাজলেই ঘুমের হাতে নিজে সপে দেই|

আড্ডামুখর সময় গুলা তো এখন বিলেতের মত সুদুর| প্রতি শুক্রবার বন্ধুদের চেহারা দেখার জন্যে, আড্ডা দেয়ার জন্যে আর প্রানপ্রিয় ক্যাম্পাস টার চেহারা দেখার জন্যে মনটা কেমন যেন করে| কিন্তু এখন আর কারই সময় হয়না| তাই একা একাই হয়ত মাঝে মাঝে ক্যাম্পাস থেকে ঘুরে আসি | অন্তত সে তো বলবে না যে “দোস্ত অনেক টায়ার্ড লাগতেসে, শুক্রবার আর বের হব না”, কিংবা অন্য কোনো অজুহাত| জর বস্তু কে ভালোবাসলে আসলে লাভই আছে|

গতকাল একজায়গায় মনের মতন একটা কথা দেখলাম - “চাকরি না পেলে কষ্ট লাগে, কিন্তু চাকরি পেলে তারচেয়েও অনেক বেশি কষ্ট লাগে”| এরচে বড় সত্য কথা খুব কমই শুনেছি বোধয়| চাকরি পেলাম, অর্থনৈতিক স্বাধীনতা পেলাম বিনিময়ে নিজের জীবন টা হারালাম| আমি এখন টাকার কামলা| আমার জীবন এখন এখন একজন কর্পোরেট কামলার জীবন|

লেখিকা: তামান্ন তাসমিন

বাংলাদেশ সময়: ৩:১৯:০০   ৩১৩ বার পঠিত  




ফিচার’র আরও খবর


বাংলাদেশর প্রতিনিধি দল মেঘালয়ে- বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক নিয়ে আলোচনা
সিলিং ফ্যান পরে আহত সাবেক প্রতিমন্ত্রী মুরাদ হাসান- মাথায় ৩ সেলাই
টাইটানিক রহস্য
পর্যটকদের উপর হামলা- আটক ২
‘৫০ কোটি ডলার রেমিট্যান্স যোগ করছে ফ্রিল্যান্সারা - বিএফডিএস এর আলোচনা সভায় পরিকল্পনামন্ত্রী
সারাদেশে ঈদের দিন বৃষ্টিপাত !
দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের আদ্যোপান্ত - প্রথম পর্ব
নাস্তিক পণ্ডিতের ভিটা
ভয়াবহ সেই দুপুর
পুতুল নাচের ইতিকথা

আর্কাইভ

16. HOMEPAGE - Archive Bottom Advertisement