ভাঙ্গায় একসনা বন্দোবস্ত দেয়ার পক্ষে বিপক্ষে মিছিল, রয়েছে নানান অভিযোগ

Home Page » প্রথমপাতা » ভাঙ্গায় একসনা বন্দোবস্ত দেয়ার পক্ষে বিপক্ষে মিছিল, রয়েছে নানান অভিযোগ
বৃহস্পতিবার, ২৪ ডিসেম্বর ২০২০



ভাঙ্গায় বন্দোবস্ত দেয়া স্থান পরিদর্শণ ও স্থানীয়দের সাথে কথা বলছেন ফরিদপুরের স্থানীয় সরকারের উপ-পরিচালক মোঃ মনিরুজ্জামান
ব্যুরো চিফ, ফরিদপুরঃ-
ফরিদপুরের ভাঙ্গা পৌর বাজারে সরকারী খাস খতিয়ানের জায়গায় একসনা বন্দোবস্ত বা দোকান ঘর বিতরণের পক্ষে বিপক্ষে একাধিক মিছিল হয়েছে। বৃহস্পতিবার দুপুরের পর থেকে বাজারে অবস্থিত বন্দোবস্ত দেয়া সাবেক কাঠপট্টি থেকে শুরু করে উপজেলা ভূমি অফিসের সামনে মিছিলগুলো অবস্থান করে। স্থানীয় সরকারের উপ-পরিচালক মোঃ মনিরুজ্জামান ঘটনাস্থল পরিদর্শণ শেষে বরাদ্দকৃত দোকান ঘরের নির্মাণ কাজ পরবর্তী নির্দেশের আগ পর্যন্ত স্থগিতের আদেশ দেন।
সরেজমিনে জানা যায়, ভাঙ্গা বাজারের ১নং খাস খতিয়ান ভুক্ত ৫৫ নং সদরদী মৌজার এসএ দাগনং- ৪২৩, ৪২৪ ও বিএস- ১৮৫২, ১৮৫৩ নং দাগে মোট জমির পরিমাণ ৬২ শতাংশ । এ জমিতে ভাঙ্গা ঈদগাহ্ মাদ্রাসা ও এতিম খানার নামে ১০টি দোকান ঘর ডিসিআর নিয়ে দীর্ঘদিন যাবৎ ব্যবসা করে আসছিল। আনুমানিক সাত থেকে আট বছর এ জমির বন্দোবস্ত নবায়ন না করায় ও সরকারী প্রয়োজনীয়তায় এক আদেশ মোতাবেক দোকানঘর গুলো ভেঙ্গে দেওয়া হয়। সম্প্রতি সেখানে বালু ভরাট করে ৮৪ টি দোকান ঘরের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। গত ২৩ ডিসেম্বর সেখানে তালিকা মোতাবেক ঘর নির্মানের আদেশ দেয় সরকার।
সরকারী নির্দেশ পেয়ে রাত থেকে ঘর নির্মানের কাজ শুরু হলে, বৃহস্পতিবার সকালে জড়হতে থাকে এ জমির জন্য আবেদন করা সহ¯্রাধিক আবেদনকারীরা। এ সময় ক্ষতিগ্রস্থ্য ও আবেদনকারী ব্যবসায়ীদের মাঝে উত্তেজনার সৃষ্টি হলে এলাকাটিতে থমথমে অবস্থা বিরাজ করে। পরে স্থানীয় সরকারের উপ-পরিচালক মোঃ মনিরুজ্জামান ঘটনাস্থল পরিদর্শণ কালে বরাদ্দকৃত দোকান ঘরের নির্মাণ কাজ পরবর্তী নির্দেশের আগ পর্যন্ত স্থগিতের আদেশ দেন।
এদিকে নির্মাণ কাজ স্থগিতের আদেশের পর থেকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও এসিল্যান্ডের বিরুদ্ধে কোটি টাকার বাণিজ্যর অভিযোগ এনে শুরু হয় মিছিল। প্রকৃত ব্যবসায়ীদের না দিয়ে স্থানীয় দালাল, উপজেলা ও ভূমি অফিসের ৪র্থ শ্রেণীর কর্মচারীর মাধ্যমে টাকা হাতিয়ে নিয়ে তাদের মনোনিত ব্যাক্তিদের নামে দোকান ঘর বরাদ্দ দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেন বিক্ষোভকারীরা।
অপরদিকে সরকারী নির্দেশনার পক্ষে দুইটি মিছিল ভূমি অফিসের সামনে অবস্থান করে। কোটি টাকার বাণিজ্যের অভিযোগ মিথ্যা বলে বিভিন্ন শ্লোগান দিতে থাকে তারা।
অনিয়ম ও লেনদেনের বিষয়ে অস্বীকার করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রকিবুর রহমান খান ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) মুহাম্মদ আল-আমিন।
যথাযথ প্রক্রিয়ায় সরকারের উর্দ্ধোতন কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে দ্রুত সময়ের মধ্যে সঠিক ব্যবস্থার দাবী স্থানীয়দের। তা না হলে অনাকাঙ্খিত ঘটনার মাধ্যমে আইন শৃঙ্খলার অবনতী হতে পারে বলে মনে করছেন তারা।

বাংলাদেশ সময়: ২১:৪৯:৫০   ৪১৩ বার পঠিত   #  #  #  #  #




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

প্রথমপাতা’র আরও খবর


বিএনপি সবসময় ধ্বংসাত্মক কাজ করে: প্রধানমন্ত্রী
ইসি গঠনের আইনে যা যা থাকছে
নির্বাচন কমিশন আইন সংসদে উঠছে কাল
মালয়েশিয়ার সাবেক প্রধানমন্ত্রী হাসপাতালে ভর্তি
আরেক শিক্ষার্থী হাসপাতালে, শিক্ষকদের প্রতিনিধিদল ঢাকায়
মাস্ক আমার, সুরক্ষা সবার’ ক্যাম্পেইন শুরু আজ থেকে
সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের চলমান আন্দোলনের প্রতি একাত্মতা জ্ঞাপন করেছে সিলেটের সংস্কৃতিকর্মীরা
কেমন হবে ৫০ বছর পরের বাংলাদেশ?
দুই সপ্তাহের জন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী
যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট শুভেচ্ছা জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে

আর্কাইভ

16. HOMEPAGE - Archive Bottom Advertisement