ভারত জানালে পিকে হালদারের বিষয়ে ব্যবস্থা: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

Home Page » অর্থ ও বানিজ্য » ভারত জানালে পিকে হালদারের বিষয়ে ব্যবস্থা: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
রবিবার ● ১৫ মে ২০২২


ফাইল ছবি-আসাদুজ্জামান খান কামাল

বঙ্গ-নিউজ: বাংলাদেশে আর্থিক খাতের কেলেঙ্কারির আলোচিত নাম প্রশান্ত কুমার (পিকে) হালদার। গতকাল শনিবার (১৪ মে) তাকে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ থেকে গ্রেপ্তার করে দেশটির আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। এ নিয়ে বাংলাদেশ সরকারের অবস্থান জানতে চাইলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, গণমাধ্যমের খবর দেখেছি, তবে এ ব্যাপারে ভারত আমাদের কিছু জানায়নি।

আজ রোববার (১৫ মে) জাতীয় প্রেসক্লাবে অনুষ্ঠিত ‘শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন: ইতিহাসের পুনর্নির্মাণ’ শীর্ষক আলোচনা সভায় অংশ নিয়ে বক্তব্য দেওয়ার সময় এ মন্তব্য করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। তিনি বলেন, ভারত আনুষ্ঠানিকভাবে গ্রেপ্তারের বিষয়টি জানানোর পর পিকে হালদারকে ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের চাঞ্চল্যকর হাজার কোটি টাকা লোপাটের মামলায় মূল অভিযুক্ত পিকে হালদার। এছাড়া আরও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের কোটি কোটি টাকা আত্মসাৎ করেছেন। দীর্ঘ সময় পালিয়ে বেড়ালেও শেষ রক্ষা হলো না তার, ধরা পড়লেন ভারতের পশ্চিমবঙ্গে। অভিযানে তার সহযোগী হিসেবে আরও পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

শুধু দুর্নীতি দমন কমিশনই (দুদক) প্রশান্ত কুমার হালদারের বিরুদ্ধে ৩ হাজার কোটি টাকা পাচারের প্রমাণ পেয়েছে। ইন্টারন্যাশনাল লিজিং থেকেই আত্মসাৎ করেছেন দেড় হাজার কোটি টাকা। সবমিলিয়ে তার বিরুদ্ধে প্রায় সাড়ে ৩ হাজার কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ রয়েছে। তিনি ৬২ জন সহযোগীর মাধ্যমে এসব অর্থ পাচার করেছেন বলে জানা যায়।

ফাইল ছবি- প্রশান্ত কুমার হালদর

প্রায় আড়াই বছর আগে দুদক যখন এসব নিয়ে অনুসন্ধান শুরু করে, তখন গ্রেপ্তার এড়াতে দেশ থেকে পালিয়ে যান পি কে হালদার। কানাডার বেগমপাড়ায় তার বিলাসবহুল বাড়ি আছে বলে দেশটির কর্তৃপক্ষ বাংলাদেশ সরকারকে জানিয়েছে। তাকে গ্রেপ্তারে বাংলাদেশ পুলিশের আহ্বনে রেড অ্যালার্টও জারি করেছিল আন্তর্জাতিক পুলিশ সংস্থা ইন্টারপোল।

বাংলাদেশ সময়: ২০:৩৪:৩৯ ● ৭১৭ বার পঠিত




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

আর্কাইভ