বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী যা বললেন সয়াবিন তেলের দাম বাড়ানো নিয়ে

Home Page » জাতীয় » বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী যা বললেন সয়াবিন তেলের দাম বাড়ানো নিয়ে
মঙ্গলবার ● ১৬ এপ্রিল ২০২৪


 রাজধানীর সেগুনবাগিচায় মিট দ্য রিপোর্টাস অনুষ্ঠানে বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম। ফাইল ছবি

  বঙ্গনিউজঃ  সয়াবিন তেলের দাম লিটারে ১০ টাকা বাড়িয়েছে ভোজ্যতেল আমদানিকারক ও পরিশোধনকারী মিলগুলোর সংগঠন বাংলাদেশ ভেজিটেবল ওয়েল রিফাইনার্স অ্যান্ড বনস্পতি ম্যানুফেকচারার্স অ্যাসোসিয়েশন। ঘোষণা অনুযায়ী প্রতি লিটার তেলের নতুন দাম ১৭৩ টাকা। তবে মিলারদের এ ঘোষণা প্রত্যাখ্যান করেছেন বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম।

আজ মঙ্গলবার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি (ডিআরইউ) আয়োজিত মিট দ্য রিপোর্টাসে তিনি দাম বাড়ানোর বিষয়টি প্রত্যাখ্যান করেন।

ডিআরইউ সাধারণ সম্পাদক মহি উদ্দিনের পরিচালনায় আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সংগঠনটির সভাপতি সৈয়দ শুকুর আলী শুভ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ডিআরইউ নির্বাহী কমিটির সদস্যসহ গণমাধ্যম কর্মীরা।

রমজান উপলক্ষে ভোজ্যতেলের স্থানীয় উৎপাদনে ও আমদানি পর্যায়ের ভ্যাট ৫ শতাংশ ছাড় দেওয়ায় ১ মার্চ থেকে লিটারে ১০ টাকা কমানো হয় তেলের দাম। ভ্যাট ছাড়ের এ মেয়াদ ছিল গতকাল সোমবার (১৫ এপ্রিল) পর্যন্ত। মেয়াদ শেষ হওয়ায় সয়াবিন তেলের দাম বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে সংগঠনটি। ঘোষণা অনুযায়ী, প্রতি লিটার বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম হবে ১৭৩ টাকা, যা এতদিন ছিল ১৬৩ টাকা। ৫ লিটারের বোতল হবে ৮৪৫ টাকা, এতদিন এ দাম ছিল ৮০০ টাকা। এছাড়া পামওয়েলের লিটার নির্ধারণ করা হয়েছে ১৩২ টাকা। তবে রোজার আগে যখন সয়াবিনের দর নির্ধারণ করা হয় তখন পামওয়েলের দাম নির্ধারণ করা হয়নি। আজ থেকে নতুন দর কার্যকর করেছে মিলাররা। এ দর নির্ধারণ করে বাণিজ্য সচিবকে এরই মধ্যে চিঠি দিয়েছে সংগঠনটি।

দাম বাড়ানোর বিষয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী বলেন, ভোজ্যতেল আগের দামে ফিরে যাওয়ার সুযোগ নেই। তিনি বলেন, তেলে ৫ শতাংশ ভ্যাট কমানো হয়েছিল, এতে ভোক্তা পর্যায়ে ১০ টাকা কমেছিল। এখন ট্যারিফ কমিশন এটা নিয়ে কাজ করছে। দেখা হচ্ছে মিলাররা কি দামে তেলর কাঁচামাল আনছেন, তার দাম কেমন পড়ছে ইত্যাদি বিষয়ে।

বাংলাদেশ সময়: ১৪:৩৫:৫১ ● ৯০ বার পঠিত




পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)

আর্কাইভ